জিজ্ঞাসা ও জবাব ১ম ও ২য় খন্ড একত্রে Pdf আকারে ইসলামিক বই || Aazeen Of Islam

জিজ্ঞাসা ও জবাব ১ম ও ২য় খন্ড একত্রে Pdf আকারে ইসলামিক বই || Aazeen Of Islam

জিজ্ঞাসা ও জবাব ১ম ও ২য় খন্ড একত্রে Pdf আকারে ইসলামিক বই || Aazeen Of Islam

Welcome to Aazeen Of Islam

Aazeen Of  Islam.com   শুদ্ধ ইসলামী জ্ঞানের নানা উপকরণের একটি সমৃদ্ধ ভাণ্ডার এতে আপনারা অনেক শীঘ্রই পেয়ে যাবেন শত শত প্রবন্ধ, বই, ইসলামি অডিও/ ভিডিও লেকচার কোরআন তিলাওয়াত,

আরও অনেক কিছু যার জন্য আমরা প্রতিনিয়তই আপডেটের কাজ চালিয়ে যাচ্ছি।

আমাদের মূল উদ্দেশ্যঃ

১। দ্বীন প্রচার,

২।কম সচেতন মুসলিমদের মাঝে সচেতনতা সৃষ্টি করা,

৩।আমুসলিম ও নাস্তিকদের মাঝে ইসলামের সঠিক চিত্র তুলে ধরা,

৪।সকলের ভ্রান্ত ধারণার অবসান ঘটানো

আমাদের সাইটের APP

(NOW AVAILABLE ONLY FOR ANDROID )

https://drive.google.com/file/d/1Yh5xFhQ8-dLvWT5bprPtixdjDsACsinC/view?usp=sharing

“BOOK REVIEW”

Writer

ড. খােন্দকার আব্দুলাহ জাহাঙ্গীর (রাহিমাহুল্লাহ) 

পি-এইচ. ডি. (রিয়াদ), এম, এ, (রিয়াদ), এম,এম, (ঢাকা) অধ্যাপক, আল-হাদীস এন্ড ইসলামিক স্টাডিজ বিভাগ,

ইসলামী বিশ্ববিদ্যালয়, কুষ্টিয়া।

আস-সুন্নাহ পাবলিকেশন্স

যারাহ পরিমাণ ঈমানের পরিমাপটা কী? 

এটা আসলে নূ্যনতম বােঝাতে ব্যবহার করা হয়ে থাকে। একেবারে সামান্য। পরিমাণ ঈমান, তাওহীদের বিশ্বাস যদি কারাে থাকে, আল্লাহ তাকে মুক্তি দেবেন। এটা আল্লাহ তাআলা বুঝবেন যে, 

শিরকমুক্ত তাওহীদের বিশ্বাস ন্যূনতম কত ছিল। 

 নামাযের সিজদার মধ্যে যে মুনাজাতটা আছে- এটা বিস্তারিত জানতে চাই। 

 এটা অত্যন্ত গুরুত্বপূর্ণ প্রশ্ন, বিশেষ করে এই রমাযানে আমরা আল্লাহর কাছে বেশি বেশি দুআ করব।

 রাসূল (রাঃ) এর শেষ অসিয়ত, রবিউল আউয়াল মাসের সম্ভবত ১২ তারিখ সােমবার দিন সকাল বেলায় তাঁর সাহাবিগণ ফজরের সালাত আদায় করছেন, রাসূল (রাঃ) ঘরেই আছেন, অসুস্থতার কারণে কাঁধে ভর দিয়ে দরজার কাছে দাড়ালেন। 

পর্দা সরানাে হল…

“DOWNLOAD LINK GIVEN BELOW”

১ম খন্ড

জিজ্ঞাসা ও জবাব ১মDownload

২য় খন্ড

জিজ্ঞাসা ও জবাব ২য়Download

সাহাবায়ে কেরাম আনন্দে উল্লসিত হলেন, রাসূল  (রাঃ) হয়ত সুস্থ হয়েছেন,

 তিনি নামাযে দাঁড়াবেন, ইমামতি করবেন।

 তিনি ইশারা করতে ন যে তােমরা থাকে। 

তারপর বললেন, রুকুতে তােমরা রবের তাযীম প্রকাশ করবে, যখন সিজদা করবে, তখন বেশি বেশি দুআ করবে এবং সিজদার দুআ কবুল হওয়ার সম্ভাবনা খুবই বেশি। 

কাজেই আমরা সিজদায় সব দুআই করব। 

সবকিছু চাইব। 

দুনিয়া আখেরাতের সকল বিষয় চাইব। তবে চওয়ার 

ভাষাটা হবে আল্লাহ তাআলার কাছে আবেদনের ভাষা, মানুষে মানুষে কথার ভাষা নয় 

 রাসূল  (রাঃ) এর শেখানাে সুন্নাত দুআগুলাে মুখস্ত করলে ভালাে হয়……